video video video



মেসির দাড়ি নিয়ে টুইটারে তুমুল যুদ্ধ!


SPORTSONLY.NET :
23.09.2018

বিষয়টা যখন ফুটবল জাদুকর লিওনেল মেসিকে নিয়ে, তখন উত্তেজনাহীন কোনো মুহূর্ত থাকতে পারে না। কারণ, গোল, অ্যাসিস্ট, প্লে-মেকিং এবং ফুটবল প্রতিভা সব কিছুতেই অসাধারণ তিনি। এসব নিয়ে সব সময়ই উত্তেজনা চলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। কিন্তু এসবের বাইরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এবার ক্ষুদে এই জাদুকরকে নিয়ে জন্ম দিয়েছে নতুন যুদ্ধের।

 

পর্তুগিজ তারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো স্প্যানিশ জায়ান্ট রিয়াল মাদ্রিদ ছেড়ে যখন ইতালিয়ান ক্লাব জুভেন্টাসে যোগ দিলেন তখন থেকে রোনালদো-মেসি তুলনাও কমে যায় ব্যাপকহারে।

 

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ও লা লিগার চলতি মৌসুমে এখন একমাত্র ডিসাইডার মেসি। কেননা, যেখানে রোনালদো নেই, সেখানে সমস্যাও নেই। নেই মেসিকে নিয়ে কারও সঙ্গে তুলনা ও বিতর্ক।

 

তবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটার এবার এমন যুদ্ধের অবতারণা করেছে যা চলছে মেসি বনাম মেসি। আর এই বিতর্কে অংশ নিচ্ছে অসংখ্য মেসি ভক্ত।

 

সম্প্রতি দাড়ি কামিয়ে নতুন লুক এনেছেন বার্সেলোনা তারকা মেসি। তার এই দাড়ি নিয়েই এবার টুইটারে চলছে তুমুল বিতর্ক। দাড়ির পক্ষে-বিপক্ষে দাঁড়িয়েছেন মেসি ভক্তরা।

 

কেউ বলছেন, দাড়ি ছাড়া মেসিকে অনেক কিউট লাগে। বয়স কম দেখায়। আবার কেউ বলছেন, দাড়িতে আকর্ষণীয় ও ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন দেখায় তাকে।

 

পক্ষের ভক্তদের একজন টুইটারে লিখেছেন, “যদি মনে করেন দাড়ি ছাড়াই মেসিকে গ্রেট দেখায়, তবে আপনি ঘোরের মধ্যে আছেন।”

 

আরেক ভক্ত লিখেছেন, “যখন মেসির দাড়ি ছিল তখন তার জীবনটাও গ্রেট ছিল।”

 

ইন্ডিয়ান এক ভক্ত লিখেছেন, “দাড়িতেই মেসিকে বেশি সুন্দর দেখায়।”

 

অন্যদিকে বিপক্ষেও রয়েছে অসংখ্য ভক্ত। তাদের একজন লিখেছেন, “দাড়িতে মেসিকে সবসময় বিরক্তিকর লাগে।”

 

“ছোটচুলে এবং দাড়িবিহীন মেসিকেই সবসময় সুন্দর লাগে,” লিখেন আরেক ভক্ত।

 

অন্য একজন লিখেছেন, “দাড়ি ছাড়াই মেসিকে স্বাচ্ছন্দ্য লাগে।”

 

তবে কেউ কেউ এটাও লিখেছেন, দাড়িসহ ও দাড়ি ছাড়া উভয় অবস্থাতেই মেসিকে কিউট দেখায়।

 

এদিকে মেসির এই দাড়ি নিয়ে বিতর্কের অবসান ঘটাতে একটি ভোটাভুটির আয়োজন করেছে বার্সাসেন্টার নামের একটি টুইটার আইডি।

 

এতে দেখা যায়, দাড়ির পক্ষে ভোট পড়েছে ৪০ শতাংশ আর বিপক্ষে পড়েছে ৬০ শতাংশ।

 

তবে মেসির দাড়ি নিয়ে বিতর্ক চললেও তিনি কিন্তু উভয় লুকেই মাঠে অসাধারণ পারফম্যান্স দেখিয়েছেন।

 

পরিসংখ্যানে দেখা যায়, ২০১৬ থেকে ২০১৮ দাড়িওয়ালা মেসি ১১২ ম্যাচে গোল করেছেন ১০৬টি। আর ২০০৪ থেকে ২০১৬ দাড়িবিহীন মেসি ৫৩১ ম্যাচে গোল করেছেন ৪৫৩টি।

 

সূত্র: ডেইলি টাইমস (ইংরেজি মূল প্রতিবেদন পড়তে এখানে ক্লিক করুন)

 

আরও পড়ুন:

এশিয়া কাপ খেলতে যাচ্ছেন ইমরুল-সৌম্য

সুযোগ পেয়েও ব্যর্থ আশরাফুল

এশিয়া কাপ-২০১৮ এর খুঁটিনাটি

নতুন তারকা অঙ্কন

মাশরাফির পারফম্যান্স নিয়ে এ কেমন প্রশ্ন আগারকারের!



Copyright © 2019 sportsonly.net